প্রতি বছর ১১ রবিউস সানি ফাতেহা-ই-ইয়াজদহম পালন করা হয়।

আলেয়া ‍বেগম ১৭ নভেম্বর,২০২১ ২৮ বার দেখা হয়েছে লাইক ১১ কমেন্ট ৫.০০ ()

ইয়াজদাহম’ ফারসি শব্দ, যার অর্থ এগারো। ফাতিহা-ই-ইয়াজদাহম বলতে এগারো তম দিনকে বোঝায়। এই ফাতিহা-ই-ইয়াজদাহম আবদুল কাদের জিলানী রহ: এর স্মরণে পালিত হয়।

প্রতি বছর ১১ রবিউস সানি ফাতেহা-ই-ইয়াজদহম পালন করা হয়।ফাতেহা-ই-ইয়াজদাহাম হলো বড় পীর হজরত আবদুল কাদির জিলানী রহ. এর ওফাত দিবস। হিজরি ৫৬১ সনের ১১ রবিউস সানি তিনি ইন্তিকাল করেন।ইসলামের অন্যতম শ্রেষ্ঠ ধর্মনেতা হজরত আবদুল কাদের জিলানী রহ.-এর নাম প্রত্যেক মুসলমানের কাছে শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণীয়। মুসলমানদের ধর্মীয় জীবনে তার প্রভাব অপরিসীম। তার জীবনী ও কীর্তিগাথা মুসলমানদের হৃদয়ে চিরদিন জীবন্ত হয়ে থাকবে।

একজন আদর্শ পুরুষ হিসেবে বিশ্ব জগতে মুসলমানদের কাছে হজরত বড়পীর আবদুল কাদের জিলানী রহ.-কে পরম ভক্তি, শ্রদ্ধার সঙ্গে চিরকাল স্মরণ করবে। পৃথিবীতে আল্লাহ পাকের প্রেরিত নবী-পয়গম্বর এসেছেন ১ লাখ বা ২ লাখ ২৪ হাজার।

অন্যদিকে কামেল পীর, অলি, দরবেশ, ফকির যে কত এসেছেন তার ইয়ত্তা নেই। কিন্তু সব পীর, ফকির, দরবেশ, অলির সেরা ছিলেন হজরত আবদুল কাদের জিলানী রহ. মহানবী হজরত মুহাম্মদ সা.-এর ওফাতের প্রায় ৫০০ বছর পর জন্মগ্রহণ করেন। তখন ইসলাম ধর্ম এক নাজুক অবস্থায় এসে দাঁড়িয়েছিল।পবিত্র কুরআন ও আল্লাহর রাসুল মুহাম্মদ সা.-এর আদর্শ ভুলে মানুষ বিপথে পা বাড়িয়েছিল, ঠিক এমনি সময় হজরত বড়পীর ইসলামের পথে মানুষকে ডাক দিয়েছিলেন।

হজরত আবদুল কাদের জিলানী রহ.-এর বাবার নাম সৈয়দ আবু সালেহ এবং মায়ের নাম বিবি ফাতেমা। হজরত আবদুল কাদের জিলানি রহ. ৪৭০ হিজরিতে ইরানের জিলান শহরে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি বাগদাদের মহান পীর হজরত আবু সাঈদ ইবনে আলী ইবনে হুসাইন মাখরুমির রহ. কাছে মারেফাতের জ্ঞানে পূর্ণতা লাভ করেন এবং খেলাফত প্রাপ্ত হন।এ কথা অনস্বীকার্য হজরত আবদুল কাদির জিলানী রহ. এর অবদান বিশ্বে অনন্য। তিনি মুসলিমদের কাছে চির স্মরণীয় হয়ে থাকবেন। 


মতামত দিন
সাম্প্রতিক মন্তব্য
Most Marju Ara Begum
২৩ নভেম্বর, ২০২১ ০৮:০১ অপরাহ্ণ

আসসালামু-আলাইকুম,লাইক ও পূর্ণরেটিং সহ শুভকামনা। আমার আপলোডকৃত কনটেন্ট,ব্লগ,চিত্র,ভিডিও কনটেন্ট,প্রকাশনা,মাগ্যাজিন, খবর-দার দেখে লাইক, রেটিং ও কমেন্ট করার অনুরোধ রইলো।


লুৎফর রহমান
২১ নভেম্বর, ২০২১ ১১:৩৩ অপরাহ্ণ

Best wishes with full ratings. Sir/Mam. Please give your like, comments and ratings to watch my all-contents


আলেয়া ‍বেগম
২২ নভেম্বর, ২০২১ ০২:০১ পূর্বাহ্ণ

ধন্যবাদ স্যার


মোঃ ওয়াজেদুর রহমান
২১ নভেম্বর, ২০২১ ১০:৩৩ অপরাহ্ণ

বাস্তবসম্মত ও যুগোপযুগী সমসাময়িক বিষয়ে ব্লগ আপলোড করে শিক্ষক বাতায়নকে সমৃদ্ধ করার জন্যআপনাকে ধন্যবাদ। লাইক ও পূর্নরেটিং সহ আপনার জন্য শুভ কামনা। আমার চলতি পাক্ষিকের আপলোড কৃত.১০৯ তম কন্টেন্ট দেখে আপনার মূল্যবান মতামত ও রেটিং দেওয়ার জন্য বিনীত অনুরোধ করছি।আমার কনটেন্ট লিঙ্ক https://www.teachers.gov.bd/content/details/১১৮১৭৩৫আমার ১৪৪ তম ব্লগ লিঙনhttps://www.teachers.gov.bd/blog/details/৬২৯৮৮৯ ৩৬০ তম ভিডিও লিঙ্ক www.teachers.gov.bd/content/details/1150210 ৬৩৫তম ছবি লিঙ্ক www.teachers.gov.bd/content/details/১১৭৮৭৫৯ মোঃ ওয়াজেদুর রহমান, সিনিয়র শিক্ষক, গাইবান্ধা সরকারি উচ্চ বালক বিদ্যালয়, গাইবান্ধা।


আলেয়া ‍বেগম
২২ নভেম্বর, ২০২১ ০২:০২ পূর্বাহ্ণ

ধন্যবাদ স্যার


মোঃ আব্দুর রাজ্জাক
১৭ নভেম্বর, ২০২১ ১২:৫৩ অপরাহ্ণ

সুন্দর উপস্থাপনা। আপনার জন্য রইল শুভকামনা।আমার কনটেন্ট সম্পর্কে আপনার সুচিন্তিত মতামত ও পরামর্শ কামনা করছি। https://www.teachers.gov.bd/content/details/1170607


আলেয়া ‍বেগম
২২ নভেম্বর, ২০২১ ০২:০২ পূর্বাহ্ণ

ধন্যবাদ স্যার


মন্তোষ ভৌমিক
১৭ নভেম্বর, ২০২১ ১১:৪৬ পূর্বাহ্ণ

লাইক ও পূর্ণ রেটিংসহ আপনার জন্য শুভকামনা রইলো। আমার আপলোডকৃত কনটেন্ট দেখে আপনার মূল্যবান মতামত ও পরামর্শ দেওয়ার জন্য অনুরোধ করছি।


আলেয়া ‍বেগম
২২ নভেম্বর, ২০২১ ০২:০৩ পূর্বাহ্ণ

ধন্যবাদ স্যার


প্রকৌঃ মোঃ শফি উদ্দীন
১৭ নভেম্বর, ২০২১ ১১:০৭ পূর্বাহ্ণ

Excellent!  Surely your competency will enrich the 'Shikkhok Batayon'. You are invited to my _ppt content _Video content


আলেয়া ‍বেগম
২২ নভেম্বর, ২০২১ ০২:০৩ পূর্বাহ্ণ

ধন্যবাদ স্যার