সংসারের টাকা বাঁচানোর পাঁচ টিপস

মো . জিল্লুর রহমান ১৮ জানুয়ারি,২০২২ ২৬ বার দেখা হয়েছে লাইক কমেন্ট ৫.০০ ()

অপেক্ষা করুন ডিসকাউন্টের

যেকোনও ব্র্যান্ডই বছরের একটা সময় ডিসকাউন্ট সেল দেয়। বুদ্ধিমান দম্পতিরা সেসময়ই সারা বছরের পোশাক কিনে রাখেন। তাতে দামি ব্র্যান্ডের পণ্য বেশ সস্তায় পেয়ে গেলেন, আবার কেনাকাটাতেও টান পড়লো না।

ছুটির দিন মানেই বাইরে খাওয়া নয়

ছুটির দিনে বেড়াতে বা বাইরে খেতে গেলে বাজেট বাড়বেই। আবার দেখা যায় এই খাওয়ার আয়োজন সারতে সারতে ছুটিটাই শেষ হয়ে যায় ফুরুৎ করে। তাই অফিসের খাওয়াটা যেদিন বাইরে খেতেই হবে, সেদিনই প্ল্যান করুন সঙ্গীকে নিয়ে বাইরে খাওয়ার। আর ছুটির দিনে বাইরে ঘোরাঘুরির প্ল্যান থাকলে বাসা থেকেই খাবারের ব্যাগ নিয়ে গেলে মন্দ হয় না।

অর্ধেক হোক সঞ্চয়

খরচের পর সঞ্চয় নয়। সঞ্চয়ের পর খরচ-এ নীতি মেনে চলুন। এমনও হতে পারে যে, দু’জনেই চাকরি করছেন, তো একজনের বেতন জমতে থাকুক যৌথ কোনও ডিপিএস একাউন্টে বা সঞ্চয়পত্রে। বাদবাকি টাকাতেই চালাতে হবে সংসার, এটা মেনেই খরচ করুন। তবে দেখবেন অল্পতেই বড় অংকের অর্থ জমে যাবে।

তবে এ কাজের আগে আলোচনা করে নেওয়াই শ্রেয়। আবার বিষয়টা নির্ভর করছে পারস্পরিক আস্থার ওপরও। সঞ্চয়ের ক্ষেত্রেও ‘সব ডিম এক ঝুড়িতে’ রাখা যাবে না। মানে প্রয়োজনে ভিন্ন ভিন্নি সঞ্চয় হিসাব খুলুন। ব্যবসার চিন্তাভাবনা থাকলেও পুরো সঞ্চয় এক ব্যবসায় ঢেলে দিতে যাবেন না।  

চিকিৎসার জন্য বরাদ্দ

বেতনে যেমন মেডিক্যাল ভাতা বরাদ্দ থাকে, তেমনি সেই টাকা চিকিৎসার জন্যই একেবারে আলাদা করে তুলে রাখুন। এতে ডাক্তার বা হাসপাতালে যেতে না হলেও টাকা তো বাঁচলো। বেসিক বেতনটাকেই খরচের মূল টাকা ভাবুন। এতে উচ্চাকাঙ্ক্ষার চক্র থেকে মুক্তি মিলবে।

অতঃপর হিসাব রাখুন

মাস শুরুর আগেই মাসের খরচের তালিকা করে নিন। প্রতিটি খরচ টুকে রাখার অভ্যাস করুন। তখন দেখবেন টাকাটা এতদিন কোন দিক দিয়ে ‘নেই’ হয়ে যেত। আর তখনই মনযোগী হবেন টাকা বাঁচাতে।

মতামত দিন
সাম্প্রতিক মন্তব্য
মোঃ মুজিবুর রহমান
১৯ জানুয়ারি, ২০২২ ০৮:১৪ অপরাহ্ণ

অনেক সুন্দর উপস্থাপন। লাইক ও পূর্ণ রেটিং সহ শুভকামনা রইল। আমার বাতায়ন পেজে ঘুরে আসার জন্য বিনীত অনুরোধ রইল।


সন্তোষ কুমার বর্মা
১৯ জানুয়ারি, ২০২২ ০৭:০৫ অপরাহ্ণ

সুন্দর কনটেন্ট উপস্থাপনের জন্য আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ আমার কনটেন্ট দেখার জন্য অনুরোধ করছি।


লুৎফর রহমান
১৮ জানুয়ারি, ২০২২ ১০:১৭ অপরাহ্ণ

Best wishes with full ratings. Sir/Mam. Please give your like, comments and ratings to watch my PowerPoint, blog, image, video and publication of this fortnight. Link: PowerPoint: https://www.teachers.gov.bd/content/details/1201778 Blog: https://www.teachers.gov.bd/blog-details/634048 Video: https://www.teachers.gov.bd/content/details/1202420 Video 2: https://www.teachers.gov.bd/content/details/1195969 Publication: https://www.teachers.gov.bd/content/details/1200841 Batayon ID: https://www.teachers.gov.bd/profile/Lutfor%20Rahman


মোঃ মেরাজুল ইসলাম
১৮ জানুয়ারি, ২০২২ ০৯:০৩ অপরাহ্ণ

✍️ সম্মানিত, বাতায়ন প্রেমী শিক্ষক-শিক্ষিকা , অ্যাম্বাসেডর , সেরা কন্টেন্ট নির্মাতা , প্রেডাগোজি রেটার আমার সালাম রইল। রেটিং সহ আমি আপনাদের সাথে আছি। আমার বাতায়ন বাড়িতে আপনাদের আমন্ত্রণ রইলো। সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখবেন , নিজে সুস্থ্ থাকবেন, প্রিয়জনকে নিরাপদ রাখবেন। ধন্যবাদ।🌹


মোঃ সাইফুর রহমান
১৮ জানুয়ারি, ২০২২ ০৮:৫৫ অপরাহ্ণ

❤️🌹🌹🌹❤️নতুন বছরের শুভেচ্ছা। অনেক সুন্দর উপস্থাপন। লাইক ও পূর্ণ রেটিং সহ শুভকামনা রইল। আমার বাতায়ন পেজে ঘুরে আসার জন্য বিনীত অনুরোধ রইল।


মোঃ ওয়াজেদুর রহমান
১৮ জানুয়ারি, ২০২২ ০৮:৩১ অপরাহ্ণ

বাস্তবসম্মত ও যুগোপযুগী সমসাময়িক বিষয়ে ব্লগ আপলোড করে শিক্ষক বাতায়নকে সমৃদ্ধ করার জন্যআপনাকে ধন্যবাদ। লাইক ও পূর্নরেটিং সহ আপনার জন্য শুভ কামনা। আমার চলতি পাক্ষিকের আপলোড কৃত.১১৭ তম কন্টেন্ট দেখে আপনার মূল্যবান মতামত ও রেটিং দেওয়ার জন্য বিনীত অনুরোধ করছি।আমার কনটেন্ট লিঙ্কhttps://www.teachers.gov.bd/content/details/১২০১৮১০আমার ১৭১ তম ব্লগলিঙনhttps://www.teachers.gov.bd/blog/details/৬৩৩৯২৭ ৩৬১ তম ভিডিও লিঙ্ক www.teachers.gov.bd/content/details/1২০১৭১৯ ৬৪৩ তম ছবি লিঙ্ক www.teachers.gov.bd/content/details/১২০০৮৫২ মোঃ ওয়াজেদুর রহমান, সিনিয়র শিক্ষক, গাইবান্ধা সরকারি উচ্চ বালক বিদ্যালয়, গাইবান্ধা।